কেড়ে নেয়া হচ্ছে সেই ডিসির শুদ্ধাচার সনদ

কেড়ে নেয়া হচ্ছে সেই ডিসির শুদ্ধাচার সনদ

আজ থেকে ২৫ টাকা কেজি দরে আলু বিক্রি করবে টিসিবি
ছেলে সেজে মেয়েদের সঙ্গে সমকামিতা, অবশেষে ধরা সেই টিকটকার
হঠাৎ করেই জেঁকে বসেছে শীত

নারী অফিস সহায়কের সঙ্গে আপত্তিকর ভিডিও ছড়িয়ে পড়ার ঘটনায় জামালপুরের ওএসডি হওয়া জেলা প্রশাসক (ডিসি) আহমেদ কবীরের শুদ্ধাচার সনদ কেড়ে নেয়া হবে। রোববার (২৫ আগস্ট) তাকে ওএসডি করে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় থেকে আদেশ জারি করা হয়।

এদিকে আহমেদ কবীরের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ প্রমাণিত হলে তাকে বিরুদ্ধে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দেয়া হবে বলে দুপুরে সচিবালয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে জানান জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন। তদন্তের পর ওই নারীর বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান তিনি।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, জেলায় একজন ডিসি অনুকরণীয় ব্যক্তি। তার কাছ থেকে এ রকম অনৈতিক কর্মকাণ্ড কাম্য নয়। তার বিরুদ্ধে তদন্তের মাধ্যমে দৃষ্টান্তমূলক ব্যবস্থা নেয়া হবে। অবশ্যই উদাহরণ সৃষ্টি করার মতো শাস্তি তার হবে। আমাদের চাকরির বিধানে কঠোর ব্যবস্থা নেয়ার সুযোগ রয়েছে। সেটিই হবে। আশা করছি আমরা দ্রুত একটা সিদ্ধান্ত নিতে পারব।

ফরহাদ হোসেন বলেন, আহমেদ কবীরকে এর আগে শুদ্ধাচার পদক দেয়া হয়েছিল। সেটি ফিরিয়ে নেব। যাতে এ ধরনের কাজ ভবিষ্যতে অন্য কেউ না করতে পারে। তিনি জানান, আগামীতে জেলা প্রশাসক নিয়োগ দেয়ার ক্ষেত্রে নৈতিকতা বিবেচনা করা হবে বলেও জানান প্রতিমন্ত্রী।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, জামালপুরের ডিসি অনৈতিক কাজ করেছেন। প্রাথমিক তদন্তের ভিত্তিতে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। অধিকতর তদন্তের ভিত্তিতে পরবর্তী সময় আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে। পাশাপাশি যে নারীর নাম এসেছে তাকেও তদন্তের আওতায় আনা হবে। এ ক্ষেত্রে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে তদন্ত কমিটি করে ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

COMMENTS

[gs-fb-comments]