পেঁয়াজ আসা বন্ধের দিনে ভারতে গেল ১২ টন ইলিশ

পেঁয়াজ আসা বন্ধের দিনে ভারতে গেল ১২ টন ইলিশ

আবার অর্থনীতিতে নোবেল এলো বাঙালির ঘরে
সিটি ব্যাংকে ‘বঙ্গবন্ধু কর্নার’
স্বর্ণের ভ‌রি বেড়ে ৭৬ হাজার ৩৪১ টাকা

পূর্ব সিদ্ধান্ত অনুযায়ী দুর্গাপূজাকে সামনে রেখে শুল্কমুক্ত সুবিধায় ভারতে সোমবার প্রথম দিনে ১২ টন ইলিশ পাঠিয়েছে বাংলাদেশ। ধাপে ধাপে ১৪৫০ মেট্রিক টন ইলিশ যাবে ভারত।

তবে একই দিনে হঠাৎ করেই বাংলাদেশসহ অন্য দেশগুলোতে অনির্দিষ্টকালের জন্য পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ করে দিয়েছে ভারত। এর প্রভাবে বাংলাদেশের বাজারে পেঁয়াজের দাম বেড়ে যেতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

জানা গেছে, ভারতে ইলিশ রপ্তানির জন্য বাংলাদেশি নয়টি রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠান অনুমোদন পেয়েছে। এর মধ্যে প্রথম দিনে জাহানাবাদ সি-ফুডস লিমিটেডের দুটি ট্রাকে ১২ মেট্রিক টন ইলিশ ভারতে গেছে। যার প্রতিকেজি ইলিশের রপ্তানি দাম ১০ ডলার এবং প্রতিকেজির বাংলাদেশি মূল্য ৮৫০ টাকা।

দেশে ইলিশের উৎপাদন কমে যাওয়ায় সংকট দেখিয়ে ২০১২ সালের পরে ভারতে ইলিশ রপ্তানি বন্ধ করে দেয় সরকার। তবে প্রতিবেশী দেশের সঙ্গে বন্ধুত্ব ও সু-সম্পর্ক বাড়াতে গত বছর দুর্গাপূজা উপলক্ষে ভারতের পশ্চিমবঙ্গে ৫০০ টন ইলিশ রপ্তানি করা হয়েছিল। এরই ধারাবাহিকতায় এ বছরও দুর্গাপূজা উপলক্ষে ভারতের পশ্চিমবঙ্গে ১৪৫০ মেট্রিক টন ইলিশ রপ্তানির অনুমতি দিয়েছে বাংলাদেশ সরকার।

মাছ রপ্তানিকারক খুলনার জাহানাবাদ সি-ফুডস লিমিটেডের প্রতিনিধি নিলা ইন্টারন্যাশনালের মালিক মিহির মূখার্জি জানান, বাণিজ্য মন্ত্রণালয় থেকে পূজা উপলক্ষে ভারতে ১৪৫০ মেট্রিক টন ইলিশ রপ্তানির অনুমোদন হয়। আগামী ১০ অক্টোবরের মধ্যে ১৪৫০ মেট্রিক টন ইলিশের সব চালান পাঠানোর নির্দেশনা রয়েছে। প্রথম চালানে দুটি ট্রাকে ১২ মেট্রিক টন ইলিশ ভারতে রপ্তানি হয়েছে।

বেনাপোল কাস্টমসের রাজস্ব কর্মকর্তা আকছির উদ্দিন মোল্লা জানান, দুর্গাপূজা উপলক্ষে ভারতে রপ্তানির জন্য ১৪৫০ মেট্রিক টন ইলিশ অনুমোদন দিয়েছে বাংলাদেশ সরকার। এরই ধারাবাহিকতায় আজ প্রথম চালানে ১২ মেট্রিক টন ইলিশ ভারতে গেছে। এবং ১০ অক্টোবরের মধ্যে পর্যায়ক্রমে বাকি ইলিশ ভারতে পাঠানো হবে।

COMMENTS

[gs-fb-comments]