নির্যাত;নের ভিডিও প্রকাশের ভ;য় দেখিয়ে টাকা দাবি করে আসা;মিরা

নির্যাত;নের ভিডিও প্রকাশের ভ;য় দেখিয়ে টাকা দাবি করে আসা;মিরা

সবজির দামে আগুন
জীবনের না বলা কিছু কথা প্রধানমন্ত্রীকে বলে ম’রতে চাই
মৃ’ত্যুর রহস্য জানতে ৪০ দিন পর তোলা হলো রোজিনার লা’শ

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে গৃহ;বধূকে বিব;স্ত্র করে নির্যা;তন ও ভিডিও ধারণ করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেয়ার পর তা দেশজুড়ে আলোড়ন সৃষ্টি করে। এ ঘটনায় প্রধান আসামি বাদলকে ঢাকা থেকে এবং দেলোয়ার বাহিনীর প্রধান দেলোয়ারকে নারায়ণগঞ্জ থেকে গ্রেফ;তার করে র‍্যাব-১১।

সোমবার দুপুর ২টায় র‍্যাব-১১’র অধিনায়ক লে. কর্নেল খন্দকার সাইফুল আলম প্রেস কনফারেন্সে সাংবাদিকদের জানান, ৫ অক্টোবর রাত আড়াইটায় নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জ থানাধীন চিটাগাং রোড এলাকা থেকে বিশেষ অভিযান চালিয়ে মো. দেলোয়ার হোসেনকে (২৬) একটি পি;স্তল, একটি ম্যাগা;জিন ও দুই রা;উন্ড গু;লি;সহ গ্রেফ;তার করা হয়। পরে দেলোয়ারের দেয়া তথ্যানুযায়ী ৫ অক্টোবর ভোর সাড়ে ৫টায় ঢাকার কামরাঙ্গীরচরের ফাঁড়ির গলি এলাকা থেকে ঘটনার প্রধান আ;সামি নূর হোসেন বাদলকে (২০) গ্রেফ;তার করা হয়।
তিনি আরও জানান, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায় আসামিরা ঘটনা ঘটানোর কয়েক দিন পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভিডিও প্রকাশের ভ;য় দেখিয়ে নির্যা;তিতা;র কাছে টাকা দাবি করে।

র‍্যাব জানায়, দেলোয়ার বাহি;নীর প্রধান দেলোয়ার ওই এলাকার চিহ্নিত স;ন্ত্রা;সী। এছাড়া দেলোয়ার বাহিনী বেগমগঞ্জে চাঁদা;বা;জি, মা;দক ব্যবসা ও নানান রকম সন্ত্রা;সী কার্যকলাপের সঙ্গে জড়িত। এমনকি দেলোয়ারের বিরুদ্ধে দুটি হ;ত্যা মাম;লাও রয়েছে।

আসামিদের কোনো রাজনৈতিক পরিচয় আছে কিনা জানতে চাইলে খন্দকার সাইফুল আলম বলেন, অন্যা;য়কা;রীদের কোনো দল নেই। তাদের কোনো রাজ;নৈ;তিক পরিচয় আছে কিনা তা জানার প্রয়োজ;নবোধ করছি না। তারপরও তাদের রাজ;নৈতিক পরিচয় সম্পর্কে স্থানীয়দের কাছ থেকে জানতে পারলে আমরা জানাব।
আসামিদের আরও জিজ্ঞাসাবাদ করে সিদ্ধিরগঞ্জ থানা পুলি;শে হস্তা;ন্তর করা হবে বলেও জানান তিনি।

এদিকে ঘটনার ৩৩ দিন পর ৯ জনকে আসামি করে দুটি মামলা করেন ভুক্ত;ভো;গী নারী।

মা;মলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, গত ২ সেপ্টেম্বর রাত ৯টার দিকে উপজেলার একলাশপুর ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের খাল;পাড় এলাকার নূর ইসলাম মিয়ার বাড়িতে গৃহব;ধূর বসত;ঘরে ঢুকে তার স্বামীকে পাশের কক্ষে বেঁধে রাখে স্থানীয় বাদল ও তার সহযোগীরা। এরপর গৃহব;ধূকে ধর্ষ;ণের চেষ্টা করে তারা। এ সময় গৃহবধূ বাধা দিলে তাকে বিব;স্ত্র করে বেধড়ক মারধর করে তারা মোবাইলে ভিডিও চিত্র ধারণ করে।

এর আগে ৪ অক্টোবর বেগমগঞ্জ উপজেলা থেকে এ মামলার আসামি আব্দুর রহিম (২০) ও রহমত উল্লাহকে (৩১) গ্রেফ;তার করে পুলি;শ।

গত ২ সেপ্টেম্বর নোয়াখালীর বেগমগঞ্জ উপজেলার একলাশপুর ইউনিয়নের ৯ নম্বর ওয়ার্ডে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার ৩২ দিন পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভিডিও ভাইরা;ল হওয়ার পর রোববার (৪ অক্টোবর) বিষয়টি প্রকাশ্যে আসে।

COMMENTS

[gs-fb-comments]